• শিরোনাম

    নাসিরনগর হাসপাতালে চিকিৎসক সংকটে, ব্যাহত হচ্ছে চিকিৎসা

    | শুক্রবার, ১২ ফেব্রুয়ারি ২০২১

    নাসিরনগর হাসপাতালে চিকিৎসক সংকটে, ব্যাহত হচ্ছে চিকিৎসা

    ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার ৫০ শয্যা বিশিষ্ট নাসিরনগর সরকারি হাসপাতালে চিকিৎসক সংকটে ব্যাহত হচ্ছে চিকিৎসা ব্যবস্থা। খোঁজ নিয়ে জানা গেছে,অত্র হাসপাতালে ১১ জন মেডিকেল অফিসার ও ১০ জন কন্সালটেন্ট থাকার কথা থাকলেও শুধু ৬ জন মেডিকেল অফিসার রয়েছে। ১০ জন কন্সালটেন্টের পদ শূন্য।

    উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ অভিজিৎ রায় অত্র হাসপাতালে যোগদানের পর এবং আলহাজ্ব বি,এম ফরহাদ হোসেন সংগ্রাম সংসদ সদস্য নির্বাচিত হওয়ার পর এক সময়ের জরাজীর্ণ হাসপাতালের উন্নয়নের ছোঁয়া লাগে। বর্তমানে চট্টগ্রাম বিভাগে অত্র হাসপাতালটি র‌্যাংকিংয়ে ২য় স্থানে অবস্থান করছে। জটিল ও মূমূর্য রোগীদের জন্য তৈরী করা হয়েছে ৩টি আইসোলেশন বেড।

    হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, প্রতিদিন আউট ডোরে ৫ থেকে ৬শত রোগী দেখতে স্বল্প ডাক্তারদের হিমশিম খেতে হচ্ছে। তাছাড়াও ৫০ শয্যা হাসপাতাল হলেও প্রতিদিন ৯০ থেকে ১০০জন ভর্তি করতে হচ্ছে। বেড সংকটের কারণে রোগীদের ফ্লোরিং করে সেবা নিতে হচ্ছে।

    চিকিৎসা সেবা নিতে আগত রোগীদের সাথে ডাক্তারদের অমায়িক ব্যবহার, উন্নত মানের চিকিৎসা ও পর্যাপ্ত ঔষধ পত্র পাওয়ার কারণে পাশ্ববর্তী মাধবপুর, লাখাই ও সরাইল উপজেলার বিভিন্ন গ্রাম থেকে আসছে রোগী।

    নাসিরনগর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ অভিজিৎ রায় বলেন, আমি সহ ৬জন মেডিকেল অফিসারের মাঝে ১জনকে আবার প্রেষনে ব্রাহ্মণবাড়িয়া পুলিশ লাইন হাসপাতালে বদলী করা হয়েছে। স্বল্প ডাক্তার দ্বারা এত রোগীর চিকিৎসা দিতে গিয়ে ডাক্তারদের হিমশিম খেতে হচ্ছে।

    তিনি বলেন, গাইনি, ডেন্টাল সার্জন, এনেসথেসিয়া ও অর্থোপেটিক সার্জারী ডাক্তার থাকলে এলাকার আরো বহু রোগী বাহিরে না গিয়ে অত্র হাসপাতালেই চিকিৎসা নেওয়া সম্ভব হত। তিনি বলেন, আমি ও মাননীয় এমপি মহোদয় সকল সমস্যার বিষয় লিখিত ও মৌখিক ভাবে সিভিল সার্জন সহ উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে অবগত করেছি।

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আর্কাইভ

  • ফেসবুকে চিনাইরবার্তা.কম